যে খাবারগুলো যৌন ক্ষমতা বাড়ায়

যৌন টিপস-allhealthtipsbd.com

রসুন এক দারুণ পেনিসিলিন জাতীয় প্রাকৃতিক ঔষধ। প্রায় সব ধরনের রোগেই ভাল ফল দেয় এটি। যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল লাইব্রেরি অব মেডিসিনের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউটস অব হেলথ ওয়েবসাইট ‘মেডলাইন প্লাস’এর এক গবেষণায় দেখা গেছে, কোলন, রেক্টাল, পাকস্থলী, ব্রেস্ট, প্রোস্টেট, মূত্রথলি ও ফুসফুসের ক্যান্সার প্রতিরোধে রসুন বেশ উপকারী।

তবে সবচেয়ে বেশি ‍উপকার করে যেক্ষেত্রে সেটি হচ্ছে পুরুষের যৌনশক্তির বৃদ্ধিতে। হারিয়ে যাওয়া যৌন ইচ্ছা ফিরিয়ে আনতে রসুন বেশ কার্যকরী৷

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএচও) তথ্যমতে, প্রতি মিলিলিটার শুক্রাণুতে ২০ মিলিয়নের কম স্পার্ম থাকলে তা পুরুষকে অনুর্বর করতে পারে। এক্ষেত্রে বিশেষ সহায়কের ভূমিকা পালন করতে পারে রসুন।
কেননা সুস্থ ঝবসবহ (বীর্য) তৈরিতে রসুনের বিকল্প তেমন কিছু নেই বললেই চলে।

 যৌন ক্ষমতা বাড়াতে  রসুন

শরীরের যৌবন দীর্ঘস্থায়ী করতে প্রতিদিন নিয়ম করে কয়েক কোয়া কাঁচা রসুন খেতে হবে।

যারা যৌবনের শেষ বেলায় চলে এসেছেন, তারা প্রতিদিন অন্তত ২ কোয়া রসুন খাঁটি গাওয়া ঘি’র মধ্যে ভেজে মাখন মাখিয়ে খেতে পারেন।
তবে খাওয়ার শেষে একটু গরম পানি বা দুধ খাওয়া উচিত। পানি ও দুধ খেলে ফল ভাল আশা করা যায়।

সরাসরি খেতে সমস্যা অনুভব করলে কাঁচা আমলকির রস ২ বা ১ চামচ নিয়ে তার সঙ্গে এক বা দুই কোয়া রসুন বাটা খাওয়া যেতে পারে। এতে স্ত্রী-পুরুষ উভয়ের যৌন জীবন সুখের হয়।

সতর্কতা : তবে রসুনের ব্যবহারে বেশ কিছু সতর্কতাও মেনে চলতে হবে। কেটে গেলে যাদের শরীর থেকে রক্তপাত সহজে বন্ধ হয় না, অতিরিক্ত রসুন খাওয়া তাদের জন্য বিপদজনক। কারণ, রসুন রক্তের জমাট বাঁধার ক্রিয়াকে বাধা প্রদান করে। ফলে রক্তপাত বন্ধ হতে অসুবিধা হতে পারে।

 যৌন ক্ষমতা বাড়াতে  চীনাবাদাম

খুবই সহজলভ্য একটি খাবার হচ্ছে এই চীনাবাদাম, কিন্তু যৌন সক্ষমতা বৃদ্ধিতে অত্যন্ত কার্যকর। এই বাদাম খুব ভালো প্রাকৃতিক উৎস amino acid ও L-arginine এর, যারা  সক্ষমতা বৃদ্ধিতে প্রয়োজনীয়। Dr. Nicholas Perricone এর মতে, L-arginine পুরুষাঙ্গে রক্ত চলাচল বৃদ্ধি করে যা যৌন মিলনের সময়  সক্ষমতা বৃদ্ধি করে। প্রতিদিন এক মুঠো চীনাবাদাম হতে পারে পরম বন্ধু।

 যৌন ক্ষমতা বাড়াতে ডুমুর

এই ফলটিকে পরম অবহেলার চোখে দেখা হলেও ডুমুরের গুণের শেষ নেই। ডুমুরে আছে উচ্চ মাত্রায় amino acids যা সকল হরমোনের ভিত্তি রূপে কাজ করে। দেহে amino acids এর অভাব হলে যৌন দুর্বলতা ও যৌনতায় অনাগ্রহ দেখা দিতে পারে।

 যৌন ক্ষমতা বাড়াতে কলা

অত্যন্ত সহজলভ্য ফল এই কলা অসংখ্য গুণের আধার। হ্যাঁ, যৌন সক্ষমতা বৃদ্ধিতেও অত্যন্ত সহায়ক। কলা দেহে প্রচুর এনার্জি যোগায়। এতে আছে একটি বিশেষ এনজাইম bromelain, যা যৌন দুর্বলতা রোধ করতে সহায়ক। আছে প্রচুর ভিটামিন বি, যা যৌনতার সময় ভরপুর এনার্জি যোগায়।

 যৌন ক্ষমতা বাড়াতে চিনি ছাড়া চকলেট

যৌন সক্ষমতা বৃদ্ধিতে চকলেট সহায়ক প্রমাণিত হয়েছে, কারণ এতে আছে phenylethylamine ও alkaloid । Phenylethylamine যৌন মিলনের সময় সুখানুভূতি যোগায়, অন্যদিকে alkaloid এনার্জি বৃদ্ধিতে ভূমিকা রাখে যা সঠিক ও আনন্দময় যৌনমিলনের জন্য জরুরী। তবে চিনি সহ মিল্ক চকলেট নয়, ডার্ক চকলেট হতে হবে। আর আজকাল ডার্ক চকলেট বেশ সস্তা। ক্যাডবেরী কোম্পানির স্বল্প চিনির ডার্ক চকলেট কিনতে পারবেন বেশ অল্প দামেই।

যৌন ক্ষমতা বাড়াতে শাকসবজি ও ফলমূল

শাকসবজি-ফলমূল উচ্চ মাত্রায় ভিটামিন ও মিনারেলে ভরপুর এ কথা আমরা সবাই জানি। দেহের রক্ত সচালল বৃদ্ধি করতে, এনার্জি ধরে রাখতে ও শারীরিকভাবে শক্তিশালী থাকতে প্রয়োজনীয় সকল উপাদান আছে সাধারণ শাকসবজি ও ফলমূলে।। নানান রঙের শাকসবজি প্রতিদিন রাখতে হবে খাবারের তালিকায়। কাঁচা সবজির সালাদটাই সবচাইতে বেশি উপকারী। নানান রকমের সবুজ শাক থেকে শুরু করে টমেটো, কুমড়া সহ নানান রকমের মৌসুমি ফল ও সবজি খাবেন প্রতিদিন।

  যৌন ক্ষমতা বাড়াতে কুমড়ার বীজ

ছেলেবেলায় কুমড়ার বীজ ভাজা খেয়েছেন কখনো? এই অবহেলিত খাবারটি কিন্তু যৌন সক্ষমতা বৃদ্ধিতে অত্যন্ত কার্যকর। কুমড়ার বীজে আছে উচ্চমাত্রায় জিঙ্ক, antioxidants selenium ও ভিটামিন ই। এই উপাদানগুলো দেহে রক্ত চলাচল বৃদ্ধি করে ও যৌন সক্ষমতা বৃদ্ধি করে।

এছারাও কিছু খাবার  আছে যেগুলো যৌন ক্ষমতা বাড়াতে যাদুমন্ত্রের মত কাজ করে । এগুলোর কিছু কিছু আমাদের চারপাশে পাওয়া যায় আবার কিছু পাওয়া যায় না ।
যা পান হাতের কাছে সেটাই খেতে পারেন । ভাল ফলাফল পাবেন । আসুন খাবারগুলোর নাম জেনে নেওয়া যাক–

  • ১. তরমুজ
  • ২. কালো চকোলেট
  • ৩. অ্যাস্পারাগাস
  • ৪. ঝিনুক
  • ৫. কুমড়া বীজ
  • ৬. রসুন
  • ৭. বাঁধাকপি
  • ৮. কলা
  • ৯. আভোকাডো
  • ১০. বাদাম
  • ১১. ডিম
  • ১২. তৈলযুক্ত মাছ
  • ১৩. মরিচ
  • ১৪. আখরোট
  • ১৫. ব্রকলি
  • ১৬. গরুর মাংস
  • ১৭. শিমের বীচি
  • ১৮. সেলেরি
  • ১৯. সয়া
  • ২০. মাকা গাছের শিকড়
  • ২১. গোজি বেরি
  • ২২. মধু
  • ২৩. ডুমুর
  • ২৪. সবুজ জলপাই
  • ২৫. আমলকী
  • ২৬. আলমণ্ড
  • ২৭. আম
  • ২৮. স্ত্রবেরি
  • ২৯. পিচ ফল
  • ৩০. আনারস ।

 

About নওরীন জাহান

View all posts by নওরীন জাহান →